Day: October 5, 2020

২ নভেম্বর, ২০১৯

দাবী মানার ব্যাপারে নোটিশের মাধ্যমে প্রতিশ্রুতি আর ১৬ অক্টোবর শপথের মধ্য দিয়ে মাঠ পর্যায়ের আন্দোলন বন্ধ হয়। দাবীগুলোকে বাস্তবে রূপান্তর করার জন্য ভারপ্রাপ্ত ছাত্রকল্যাণ পরিচালক ড. মোহাম্মদ আবদুল বাসিথ স্যারের সাথে এবং ছাত্রকল্যাণ পরিচালক ড.  মিজানুর রহমান স্যার দেশে আসার পর উনার সাথে দুইদিন শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধিরা আলোচনা করে। ওই আলোচনায় বার বার দ্রুত দাবী বাস্তবায়নের …

২ নভেম্বর, ২০১৯ Read More »

১৬ অক্টোবর, ২০১৯

নতুন ভোরের দিন। ১৫ তারিখের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এদিন কেন্দ্রীয় অডিটোরিয়ামে শপথ গ্রহণের পালা। সকাল থেকেই শিক্ষার্থীরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে ক্যাম্পাসে আসতে থাকে। গত ১১ অক্টোবর অডিটোরিয়ামের নিরাপত্তার দায়িত্ব শিক্ষার্থীদের উপর দেওয়া হলেও এদিন প্রশাসন পুলিশের সহায়তায় নিরাপত্তা নিশ্চিত করে। সকাল এগারোটা থেকে অডিটোরিয়ামে শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা প্রবেশ করতে শুরু করেন। বেলা বারোটার পর মাননীয় উপাচার্য উপস্থিত হলে শপথ গ্রহণ …

১৬ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১৫ অক্টোবর, ২০১৯

বুয়েট ভর্তি পরীক্ষার জন্য দুইদিন স্থগিত থাকা আন্দোলন আবার মাঠে ফিরে আসে এইদিন। সকালে সমবেত হওয়ার পর, সকল ব্যাচের মধ্যে দফায় দফায় আলোচনার মাধ্যমে একটি গুরুত্বপূর্ণ দাবি উঠে আসে – “সকল প্রকার র‍্যাগিং এর জন্য শাস্তির একটি নীতিমালা তৈরি করা”। আরও সিদ্ধান্ত হয়, যেহেতু পূর্ববর্তী দাবিগুলো বাস্তবায়নের জন্য গৃহীত পদক্ষেপ দৃশ্যমান হচ্ছে, পাশাপাশি কিছু দাবি …

১৫ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১৪ অক্টোবর, ২০১৯

আন্দোলনের বিরতির দ্বিতীয় দিন চলছে। এই দিন বুয়েটের স্নাতক শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষা ছিলো। সকাল ৯ টা থেকে দুপুর ১২ টা পর্যন্ত ইঞ্জিনিয়ারিং ফ্যাকাল্টিগুলোতে এবং দুপুর ২ টা থেকে বিকাল ৪ টা স্থাপত্য বিভাগের পরীক্ষা নির্ধারিত ছিল। আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা পরীক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবকদের পূর্ণ  সহায়তা দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। পরীক্ষা চলাকালীন অভিভাবকদের পানি ও নাস্তার সরবরাহ, পরীক্ষা …

১৪ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১৩ অক্টোবর, ২০১৯

১২ অক্টোবর, ২০১৯ তারিখ দুপুরের সংবাদ সম্মেলনে শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে আসন্ন ভর্তি পরীক্ষাকে সামনে রেখে ১৩ এবং ১৪ অক্টোবর, দুইদিনের জন্য আন্দোলন শিথিল রাখার সিদ্ধান্ত জানানো হয়। এসময়ে শিক্ষার্থীরা জানান যে তারা সুষ্ঠভাবে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত করার জন্য সকল ধরণের সহযোগিতা করবেন। বিগত বছরগুলোতে বুয়েট ভর্তি পরীক্ষায় বিভিন্ন এলাকাভিত্তিক এসোসিয়েশন তাদের নিজস্ব টেবিল নিয়ে বুথ …

১৩ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১২ অক্টোবর, ২০১৯

১১ অক্টোবর, ২০১৯ ইং তারিখে বুয়েটের তৎকালীন ভিসি ড. সাইফুল ইসলাম সাধারণ শিক্ষার্থীদের সাথে আলোচনায় বসেন। সেই আলোচনা সভায় উপাচার্যের নিজ ক্ষমতাবলে বুয়েটে সকল প্রকার সাংগঠনিক রাজনীতি নিষিদ্ধ করার ঘোষণা আসে এবং এর পরিপ্রেক্ষিতে সাধারণ শিক্ষার্থীরা তাদের অবস্থান জানিয়ে দেন ১১ তারিখ রাতেই। তবে সামান্য ভুল বোঝাবুঝির জন্য সাধারণ শিক্ষার্থীদের অবস্থান মিডিয়াতে ভুলভাবে উপস্থাপিত হয় …

১২ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১১ অক্টোবর, ২০১৯

৮ অক্টোবর, ২০১৯ সাল থেকে শুরু হওয়া বুয়েট শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের অন্যতম মূখ্য একটি দাবি ছিল উপাচার্যকে ঘটনাস্থলে (শেরে বাংলা হল) ৩০ ঘন্টা পরেও উপস্থিত না হওয়া এবং বুয়েট কেন্দ্রীয় মসজিদে অনুষ্ঠিত আবরার ফাহাদের জানাজায় উপস্থিত না হওয়ার জন্য জবাবদিহি করতে হবে। ৯ অক্টোবর শিক্ষার্থীদের সাথে দেখা করলেও তিনি যথাযথ উত্তর না দিয়েই স্থান ত্যাগ করেন। …

১১ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

১০ অক্টোবর, ২০১৯

এই দিনটার শুরু হয় আগের দুই দিনের মতোই। শিক্ষার্থীরা সকাল থেকেই তাদের ভাইয়ের হত্যার বিচারের জন্য ক্যাম্পাসের সামনের রাস্তায় সমবেত হয়। কেউ হয়তো দেয়ালে আলপনা আঁকছিল, কেউ হয়তো আন্দোলনের মাঝে দাঁড়িয়ে স্লোগান দিচ্ছিলো, কেউ কেউ হয়তো ভাই হারানোর বেদনায় আড়ালে চোখের পানি ফেলছিলো। তবে সবার মনে সবচেয়ে বড় যে চিন্তাটা ছিলো, তা হচ্ছে, “কখন হবে …

১০ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

৯ অক্টোবর, ২০১৯

আন্দোলনের তৃতীয় দিন। আগেরদিন (৮ অক্টোবর) সন্ধ্যায় ভিসি স্যার আবরার হত্যার প্রায় চল্লিশ ঘন্টা পর প্রথমবারের মত শিক্ষার্থীদের মুখোমুখি হন। তিনি কোন প্রশ্নের সদুত্তর না দিয়েই বুয়েট ত্যাগ করেন। সবার মধ্যে ক্ষোভ জমা হতে থাকে। এই ক্ষোভকে পুঁজি করেই ৯ তারিখ সকাল থেকেই আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা জড়ো হতে শুরু করে। সকাল থেকেই ভিসি স্যারের সাথে যোগাযোগ …

৯ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »

৮ অক্টোবর, ২০১৯

আবরার ফাহাদ হত্যার পরেরদিন। বুয়েটের শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের গতিবিধি এবং সার্বিক অবস্থা বিবেচনায় এই দিনের ভূমিকা অনস্বীকার্য। আগের দিনের ভিডিও ফুটেজ উদ্ধার সহ বাকি সকল কাজ শেষে পরদিন একদম সকালেই সকল শিক্ষার্থী চলে আসে ক্যাম্পাসে। আনুমানিক সকাল নয়টা নাগাদ বিভিন্ন ব্যাচ একত্রিত হয়ে আন্দোলনের বিভিন্ন বিষয় সম্পর্কে সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। এখানে বিশেষ করে ১৭ ব্যাচের পক্ষ …

৮ অক্টোবর, ২০১৯ Read More »